1. admin@ammarpluspnewschannel.com : admin :
মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০৯:৫৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
গোপালগঞ্জে ধর্ষণ চেষ্টা মামলার বাদীকে মামলা তুলে নিতে হুমকি ফরিদপুরের ধর্ষণের পর হত্যা, বাথরুমে মিলল ছাত্রীর লাশ উত্তরায় ক্রেন থেকে গার্ডার পড়ে প্রাইভেটকারের ৪ যাত্রী নিহত ভয়াবহ সড়ক দুর্ঘটনা থেকে অল্পের জন্য রক্ষা পেলেন জিএম কাদের উন্নয়নের নৌকা এখন শ্রীলঙ্কার পথে- জি এম কাদের গোপালগঞ্জে কাশিয়ানীতে ভ্যানের চাকায় ওড়না জড়িয়ে নারীর মৃত্যু নারায়গঞ্জে লাঙ্গলের হাল ধরলেন সানাউল্লাহ ও আবু নাঈম ফরিদপুরে পিস্তল-গুলিসহ যুবক গ্রেপ্তার গোপালগঞ্জ জেলার আওতাধীন গোপীনাথপুর পুলিশের সেবার মান আমূল বদলে গেছে গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে মামলা থেকে রেহাই পেতে এবং সুষ্ঠু তদন্ত করে প্রকৃত দোষীদের শাস্তির দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

এক টুকরো কাপড়ের জন্য ওরা আমাদের পড়াশোনা করার অধিকারটাই কেড়ে নিতে চায়

  • আপডেট সময় : বুধবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
  • ৬৮ বার পঠিত

 

অনলাইন ডেস্কঃ

“এক টুকরো কাপড়ের জন্য ওরা আমাদের পড়াশোনা করার অধিকারটাই কেড়ে নিতে চায়”

কর্নাটকের মাণ্ড্য প্রি-ইউনিভার্সিটি কলেজে তোলা বলে দাবি করা একটি ভিডিও নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। তাতে দেখা যাচ্ছে, হিজাব পরিহিত একজন শিক্ষার্থীকে ঘিরে ধরে ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান দিচ্ছে একদল যুবক। তাদের প্রত্যেকের গলায় বা কাঁধে গৈরিক উত্তরীয়। ভয় পেয়ে গুটিয়ে না গিয়ে হিজাব পরিহিত শিক্ষার্থী পাল্টা ‘আল্লা হু আকবর’ স্লোগান দিচ্ছে। জানা যাচ্ছে, প্রি-ইউনিভার্সিটি কলেজের ওই ছাত্রীর নাম মুসকান। এই ঘটনার সম্বন্ধে নিজের অভিজ্ঞতা জানিয়েছেন তিনি। কোন সাহসে অত মানুষ তাকে ঘিরে ফেলা সত্ত্বেও গুটিয়ে না গিয়ে পাল্টা স্লোগান দিলেন, জানালেন সেই রহস্যও।

সংবাদ সংস্থার বরাত দিয়ে আনন্দবাজার জানায়, মুসকান বলেন, ‘আমি যখন কলেজে ঢুকছিলাম, তখন বাধা দেয়া হয়। জিজ্ঞেস করা হয়, আমি কেন বোরখা পরে এসেছি? কিন্তু আমি এ সব নিয়ে মোটেও চিন্তিত নই।’

সে দিনের ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে মুসকান দাবি করেন, ‘আমাকে দেখেই ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান দেয়া শুরু হয়। আমিও পাল্টা ‘আল্লা হু আকবর’ স্লোগান দিতে থাকি।’ তার দাবি, উপস্থিত গেরুয়া উত্তরীয় পরিহিতদের কয়েক জনকে তিনি চিনতে পেরেছিলেন। কারণ তারাও মুসকানের সহপাঠী। তবে বেশির ভাগই বহিরাগত। মুসকান জানিয়েছেন, পড়াশোনা করাই তার অগ্রাধিকার। তার কথায়, ‘‘ওরা আমাদের পড়াশোনা করার অধিকারটাই ছিনিয়ে নিতে চায়, এক টুকরো কাপড়ের জন্য!’

স্কুল-কলেজে হিজাব পরে আসা যাবে না, এই দাবিতে গত কয়েক দিন ধরে পথে নেমেছে কর্নাটকের কট্টর হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলো। শান্তিপূর্ণ অবস্থান থেকে তা ক্রমশ হিংসাত্মক আকার নিচ্ছে। তেমনই ঘটনা ঘটেছিল মাণ্ড্য প্রি-ইউনিভার্সিটি কলেজে। সেখানে হিজাব পরিহিত মুসকানকে ঘিরে ধরে এক দল মানুষের ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান দেয়ার ঘটনা ঘটে। পাল্টা মুসকানও ‘আল্লা হু আকবর’ স্লোগান দেন। সেই ঘটনার ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে নেটমাধ্যমে।

মুসকান বলেন, ‘গত সপ্তাহ থেকে এটা শুরু হয়েছে। আমি বরাবরই বোরখা আর হিজাব পরতে অভ্যস্ত। ক্লাসে বোরখা খুলে হিজাব পরে নিই। হিজাব এখন যেন আমার অঙ্গ হয়ে গিয়েছে। কলেজের প্রিন্সিপালও কোনোদিন কিছু বলেননি। বহিরাগতরা এটা শুরু করেছে। এই পরিস্থিতিতে প্রিন্সিপাল আমাদের বোরখা আনতে মানা করেছেন। কিন্তু হিজাবের দাবিতে আমাদের প্রতিবাদ জারি থাকবে।’

কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের বাণিজ্য শাখার ওই ছাত্রী বলেছেন, ‘আমার হিন্দু বন্ধুরাও আমার সঙ্গে আছে। আজ সকাল থেকে একের পর এক ফোন পাচ্ছি। আমি আশ্বস্ত।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2022 Ammar Plus P News Channel
Theme Customized By Theme Park BD